×
ব্রেকিং নিউজ :
সাবেক ভূমিমন্ত্রী এমপি ডিলু আর নেই করোনাভাইরাস: মৃত্যুর সংখ্যায় চীনকে ছাড়ালো যুক্তরাষ্ট্র, ট্রাম্প বলছেন 'খুবই বেদনাদায়ক' সপ্তাহ আসছে এশিয়ায় করোনাভাইরাস মহামারী শেষ হতে অনেক সময় লাগবে : তাকেশি কাসাই ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও তিনজন আক্রান্ত হয়ে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫৪ জনে মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ছয়জনে মোট সুস্থ হয়েছেন ২৬ জন। উপসর্গ না দেখিয়েও ছড়ায় করোনাভাইরাস: ব্লুমবার্গ বাড়িভাড়া মওকুফের আহ্বান মেয়র আতিকের মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৭,৮৫,৭৭৭ জন ৩৭,৮১৫ জনের প্রাণ কেড়েছে করোনাভাইরাস অবশেষে খোঁজ মিলল তার, যার শরীর থেকে সারা বিশ্বে ছড়িয়েছে করোনা এসে গেল কোভিডের ওষুধ, শরীরে ঢুকেই গিলে ফেলবে ভাইরাস করোনায় কর্মহীন প্রায় আড়াই কোটি হতদরিদ্র
  • আপডেট টাইম : 12/03/2020 11:37 AM
  • 22 বার পঠিত

বহুল প্রত্যাশিত দেশের প্রথম প্রবেশনিয়ন্ত্রিত ৫৫ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের ঢাকা-মাওয়া-ভাঙ্গা এক্সপ্রেসওয়ে উদ্বোধন করা হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা ২ মিনিটে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এক্সপ্রেসওয়ে উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এক্সপ্রেসওয়েটি ঢাকার হানিফ ফ্লাইওভার থেকে মুন্সীগঞ্জের মাওয়া হয়ে পদ্মা সেতুর ওপর দিয়ে ফরিদপুরের ভাঙ্গায় পৌঁছাবে। ৫৫ কিলোমিটারের এই পথ পাড়ি দিতে সময় লাগবে মাত্র ৪২ মিনিট, যা এই সময় কল্পনা করাটাই স্বপ্ন। পদ্মা সেতু চালু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এর বাস্তবতা মিলবে। তবে এখনই এর সুফল পাবেন দক্ষিণবঙ্গের মানুষ। কারণ ঢাকার হানিফ ফ্লাইওভার থেকে মাওয়া পর্যন্ত ৩৫ কিলোমিটার পথ এখন পাড়ি দিতে সময় লাগবে মাত্র ২৭ মিনিট এবং এটি আজ থেকেই শুরু হলো।

ঢাকা-ভাঙ্গা ৫৫ কিলোমিটার এক্সপ্রেসওয়ে নির্মাণের কাজ শুরু হয়েছিল ২০১৬ সালের জুলাই মাসে এবং শেষ হওয়ার কথা ছিল ২০১৯ সালের জুনের মধ্যে। সব মিলিয়ে ১১ হাজার ৩ কোটি ৯১ লাখ টাকা ব্যয়ে নির্মিত এ প্রকল্পটি পদ্মা নদীর কারণে দুটি ভাগে বিভক্ত হয়েছে। এর একটি অংশ ঢাকার যাত্রাবাড়ী হানিফ ফ্লাইওভার থেকে মাওয়া পর্যন্ত ৩৫ কিলোমিটার। অন্য অংশে পদ্মার ওপারে পাঁচ্চর থেকে ভাঙ্গা পর্যন্ত ২০ কিলোমিটার। শেষ পর্যন্ত এ মাসের প্রথম সপ্তাহেই প্রকল্পের কাজ সম্পূর্ণ শেষ হয়। এতে আছে ৫৪টি কালভার্ট, চারটি রেলওয়ে ওভারপাস, পাঁচটি ফ্লাইওভার, ২০টি পাতালপথ বা আন্ডারপাস, ২৯টি মাঝারি ও ছোট সেতু, দুটি ইন্টারচেঞ্জ এবং দুটি টোলপ্লাজা। দেশের প্রথম প্রবেশনিয়ন্ত্রিত এক্সপ্রেসওয়ে প্রকল্পটি সড়ক ও জনপথ (সওজ) অধিদফতরের তত্ত্বাবধানে নির্মাণকাজ সম্পন্ন করছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর স্পেশাল ওয়ার্কস অর্গানাইজেশন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

ফেসবুকে আমরা...